BOU SSC 2nd Year Humanities 1st Assignment Answer 2021 উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় এসএসসি এসাইনমেন্ট

BOU SSC 2nd Year Humanities 1st Assignment Answer 2021 উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় এসএসসি এসাইনমেন্ট 2021, বাউবি দ্বিতীয় বর্ষের মানবিক শাখার ১ এসাইনমেন্ট।।
Bangladesh Open University Assignment

এসাইনমেন্টের শিরোনাম: পৌরনীতি ও নাগরিকতার ধারণা উল্লখে পৌরনীতি ও নাগরিকতার বিষয়বস্তু বিশত ভাবে আলোচনা করুন।

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে AllResultNotice এর ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel

পৌরনীতি ও নাগরিকতা সম্পর্কে ধারণা-
পৌরনীতি ও নাগরিকতা দুটি প্রত্যয়ের সমষ্টি। কিন্তু বিষয়বন্ত একই। পৌরনীতি শব্দের ইংরেজি প্রতিশব্দ Civics । Civics শব্দটি এসেছে ল্যাটিন শব্দ Civis এবং Civitas থেকে । Civis অর্থ হল নাগরিক (Citizen) এবং Civitas অর্থ হল নগর রাষ্ট্র। অর্থাৎ Civics মানে সে শাস্ত্র যা নগর রাষ্ট্র বসবাসকারী নাগরিকদের নিয়ে আলোচনা করে । পৌরনীতি ও নাগরিকতা বিষয়ে রাষ্ট্রের আলোচনায় নাগরিক আরও বেশি প্রাধান্য দেয়া হয়েছে। পৌরনীতি শাস্ত্রে যাত্রা শুরু মূলত প্রাচীন গ্রীসে । প্রাচীন গ্রীসে নাগরিক ও নগররাষ্ট্র পরস্পর অবিচ্ছেদ্য ছিল। তৎকালীন গ্রীসের সকল জনসাধারণ নাগরিক ছিলেন না। কেবল যারা রাষ্ট্রের শাসনকার্ধে অংশ নিতেন তারাই নাগরিকতৃ লাভ করতেন। তাই Civics নামক বিষয়টি ছিল কেবল রাষ্ট্র ও নাগরিক সম্পর্কিত জ্ঞানের সমষ্টি। নগররাষ্ট্রের সাথে নাগরিকের সম্পর্ক, কার্যাবলি, নাগরিকের সুযোগ-সুবিধা ইত্যাদিই আলোচিত হত।

এফ আই গ্রাউড বলেন “যে সকল অভ্যাস, প্রতিষ্ঠান, অভ্যাস, কার্যাবলি ও চেতনার ছারা মানুষ রাষ্ট্রীয় বা রাজনৈতিক সমাজের প্রতি দায়িত্ব ও কর্তব্য পালন করে এবং অধিকার ভোগ করতে পারে, তার অধ্যয়নই পৌরনীতি । উপরের সংজ্ঞাগুলো থেকে পৌরনীতি বলতে কি বুঝায় তা স্পষ্ট । কিন্তু এই পৌরনীতি যখন নাগরিকের জীবনের সাথে সম্পর্কিত বিষয়গুলোকে প্রাধান্য দিয়ে আলোচনা করে তখনই তা পৌরনীতি ও নাগরিকতা (Civics & Citizenship) বলে।

নিম্নে পৌরনীতির বিষয়বস্তু –

বিশ্বায়নের এই যুগে প্রত্যেকটি নাগরিকের কর্মকান্ডই রাষ্ট্রের জন্য গুরুত্বপুর্ণ। ভাল কাজ করলে তা আন্তর্জাতিকভাবে যেমন রাষ্ট্রের জন্য সুনাম বয়ে আনে তেমনি মন্দ কাজ করলে রাষ্ট্রের জন্য ক্ষতিকর হয়। বাংলাদেশ দ্রত উন্নতির দিকে ধাবিত হচ্ছে। আধুনিক যুগে পৌরনীতিকে রাষ্ট্রের নাগরিক, নাগরিকতা, রাষ্ট্রীয় ও আন্তর্জাতিক সংস্থার রূপ ও কার্যাদির পূর্ণাঙ্গ বিজ্ঞান হিসেবে চিহ্নিত করা হয়। কেননা নাগরিক হিসেবে মানুষের জীবন যতদূর বিস্তৃত পৌরনীতির বিষয়বস্তু ও ততদূর প্রসারিত।

পৌরনীতি নাগরিকতা বিষয়ক বিজ্ঞান। পৌরনীতি নাগরিকের স্থানীয়, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক এবং নাগরিকতার অতীত, বর্তমান ও ভবিষ্যৎ সবকিছু নিয়ে আলোচনা করে। নাগরিক জীবন কেবল স্থানীয় সংস্থাগুলোর সাথে জড়িত নয়, বিশ্বশান্তি প্রতিষ্ঠার লক্ষে মৈত্রীর বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার জন্য উন্মুখ। এই ধারা অব্যাহত রাখার জন্য বিশ্বাসী একে অপরের সুখে-দুঃখে পাশে দাঁড়ান এবং এই জাতীয় চেতনায় অনুপ্রাণিত হয়ে বিশ্বশান্তি রক্ষা করেন। পৌরনীতি অধ্যয়নের মাধ্যমে নাগরিকরা সুনাগরিকতার গুণাবলি অর্জন করতে সক্ষম হয়। পৌরনীতি পাঠের মাধ্যমে তারা দেশরক্ষা ও দেশের সার্বভৌমত্বকে সুসংহত করার শিক্ষা অর্জন করে। জাতীয় দায়িত্ব ও আদর্শ সম্পর্কে সঠিক ধারণা লাভ করতে হলে নাগরিকদের জন্য পৌরনীতি পাঠ জরুরি ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.